টবে আলু চাষ পদ্ধতি সম্পর্কে জেনে নিন

42

টবে আলু চাষ পদ্ধতি অন্যান্য সবজি চাষ পদ্ধতি থেকে অনেকটাই ভিন্ন। আলু চাষের জন্য বড় আকৃতির টব অথবা কন্টেইনার ব্যবহার করা হয়। টবে আলু চাষ করতে অবশ্যই টবটি এমন জায়গায় রাখতে হবে যেখানে প্রচুর পরিমাণ আলো-বাতাস পায়। অন্তত পক্ষে দিনে ৩-৪ ঘন্টা সূর্যের আলো পড়ে। এমন জায়গায় আপনাকে বাছাই করতে হবে।

টবে আলু চাষের জন্য মাটি প্রস্তুতিঃ দোআঁশ বা বেলে দোআঁশ মাটি আলু চাষের জন্য সবচাইতে ভালো। এছাড়া টবে আলু চাষ করতে চাইলে মাটিতে জৈব সারের পরিমাণ অধিক থাকা বাঞ্ছনীয়। টবের কাজকে বাইরে থেকে সার প্রয়োগ করা তুলনামূলক কঠিন। এই কারণে মাটি তৈরি সময় মাটিতে যথেষ্ট পরিমাণ জৈব সার মিশিয়ে নিতে হবে। টবে আলু চাষ পদ্ধতি তে মাটি তৈরির সময় ৪০ ভাগ পরিমাণ জৈব সার এবং ৬০ ভাগ পরিমাণ দোআঁশ মাটি সুন্দর ভাবে মিশিয়ে নিন। মাটি মেশানো হয়ে গেলে টপ টি কে এই অবস্থায় অন্তত ৭ থেকে ৮ দিন রেখে দিন।

টবে আলুর বীজ বপনঃ টব বা কনটেইনারের দুই তৃতিয়াংশ পরিমাণ মাটি নিন। এরপর উপরের অংশ সুন্দরভাবে সমান করে নিন । এবার অঙ্কুর বের হওয়া আলু কেটে এগুলোকে বীজ হিসেবে লাগিয়ে দিন। আলু কাটার সময় পুরনো আলো অংকুর এর সাথে বেশ কিছু আলুর অংশ রেখে দিন। এরপর অংকুর গুলোর উপরে তিন ইঞ্চি পরিমাণ মাটি দিয়ে ঢেকে দিন।

টবে আলু গাছের যত্ন ও পরিচর্যাঃ টবে আলু চাষ পদ্ধতি তে আলু গাছের যত্ন ও পরিচর্যা করা খুবই জরুরি। প্রথমেই মাটির সাথে যথেষ্ট পরিমাণ জৈব সার মিশিয়ে নিলে পরবর্তীতে আর সার দেয়ার প্রয়োজন হয় না। তবে নিয়মিত পানি দেয়া আলু চাষ এর জন্য অত্যন্ত জরুরি। প্রতিদিন সকাল ও বিকেলে পানি দিতে হবে তবে কোনোভাবেই অতিরিক্ত পানি জমে থাকতে দেয়া যাবে না । টব বা প্লাস্টিকের কন্টেইনার ব্যবহার করলে অপ্রয়োজনে পানি বের করে দেয়ার জন্য কন্টেইনার বা টবের নিচে আগে থেকেই ছিদ্র করে নিন।

ফসল সংগ্রহঃ টবে আলু চাষ এর ক্ষেত্রে ফসল পরিপক্ক হতে আড়াই থেকে তিন মাস সময় লাগে। মনে রাখতে হবে আলু গাছে ফুল আসার পর আলু আসতে শুরু করে। এরপর আলু গাছ এর সবুজ বর্ণ হলুদ রং ধারণ করলে বুঝতে হবে আলো সংগ্রহের সময় হয়েছে। এ সময় আপনাকে আলু সংগ্রহ করতে হবে। আপনার কনটেইনার এর নিচে যদি খোলার মতো ব্যবস্থা রাখেন তবে পরিপক্ক আলুগুলো আগেই সংগ্রহ করে নিতে পারবেন।

আরও পড়ুনঃ ছাদের টবে কমলা চাষ পদ্ধতি সম্পর্কে জেনে নিন বিস্তারিত

Comments are closed.